একাধিক হাসপাতালে ঘুরেও চিকিৎসা মিলছে না শিশুদের

12

একাধিক হাসপাতালে ঘুরেও চিকিৎসা মিলছে না শিশুদের
করোনাকালে চট্টগ্রামে সাধারণ রোগে আক্রান্ত কিংবা দুর্ঘটনায় আহত শিশুদের চিকিৎসা পেতে চরম ভোগান্তির শিকার হতে হচ্ছে। দিনের পর দিন, হাসপাতালের পর হাসপাতাল ঘুরেও চিকিৎসা পাচ্ছে না তারা।

বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকদের চেম্বার বন্ধ আর হাসপাতালগুলোতে নানা জটিলতায় শিশুদের চিকিৎসা দিতে আগ্রহী হচ্ছেন না ডাক্তাররা। তবে অভিজ্ঞ চিকিৎসকরা বলছেন, বিশেষ কৌশল করে হলেও শিশুদের চিকিৎসা নিশ্চিত করতে হবে।

লক্ষীপুরের কামাল হোসেন এবং তার স্ত্রী গত ৮দিন ধরে চার মাসের শিশু সন্তানকে নিয়ে হাসপাতাল থেকে হাসপাতালে ঘুরছেন। কিন্তু এখন পর্যন্ত চিকিৎসার কোনো সুব্যবস্থা করতে পারেননি।

শিশুটির পিতা-মাতা জানায়, ডাক্তার-নার্সরা সহনশীল আচরণ করছে না। ডাক্তার পাওয়া যায় না। নার্সদের কাছে জানতে চাইলে কোনো উত্তর দেয় না।

শত শত অভিভাবক তাদের শিশু সন্তানদের নিয়ে ঘুরছেন এক হাসপাতাল থেকে আরেক হাসপাতালে। এমনকি দুর্ঘটনায় কবলিত শিশুরাও চিকিৎসা সেবা নিতে ভোগান্তির শিকার হচ্ছে।

করোনা সংক্রমণ শুরু হওয়ার পরপরই বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকরা চেম্বারে আসা বন্ধ করে দেন। ফলে সরকারি হাসপাতালগুলোই এখন চিকিৎসার একমাত্র ভরসা। কিন্তু সেখানেও মিলছে না সেবা।

চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন মাতৃসদন হাসপাতালের শিশু রোগ বিশেষজ্ঞ ডা. সুশান্ত বড়ুয়া জানান, করোনা ফ্লু নাকি সাধারণ ফ্লু এটা যেহেতু পার্থক্য করা যাচ্ছে না, এ কারণে আমাদের শিশুরা খুবই ঝুঁকিপূর্ণ অবস্থায় রয়েছে। হাসপাতালগুলোতে কোভিড বা ননকোভিড কর্নার করে স্বাস্থ্যসেবা নিশ্চিত করতে হবে।

শিশু রোগীদের চিকিৎসা নিশ্চিতের জন্য বিশেষ কৌশল নেয়ার কথা বলছেন চিকিৎসক শিক্ষকরা।

চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজের উপাধ্যক্ষ ডা. নাসির উদ্দিন মাহমুদ জানান, ক্লিনিক্যালি টেস্ট করে রোগীর সঠিক চিকিৎসা করাতে হবে।

৭০ লাখ নগরবাসীর চট্টগ্রামে শিশুদের জন্য বিশেষায়িত কোনো হাসপাতাল নেই।

সূত্র:সময় নিউজ